বিপিএলে উঠে আসছে নতুন নতুন উঠতি তারকা।

aks-bpl-2017

বিপিএলের ২০১৫ সালের আসরে আবির্ভাবেই সবাইকে চমকে দেন আবু হায়দার রনি। গড়েছিলেন বিপিএলে এক আসরে সবচেয়ে বেশি (১২ ম্যাচে ২১ উইকেট) উইকেটের রেকর্ড। সেবার দলের চ্যম্পিয়ন হওয়ার পিছনে রাখেন দুর্দান্ত অবদান। অনূর্ধ্ব-১৪,১৬,১৮’র গণ্ডি পেরিয়ে ২০১২ সালে এসিসি অনূর্ধ্ব-১৯ টুর্নামেন্টে দুর্দান্ত খেলে সবার নজর কাড়েন তিনি। কাতারের বিপক্ষে এক ম্যাচে মাত্র ৫.৪ ওভারে ১০ রানে ৯ উইকেট নিয়েছিলেন। তারপর বিপিএলের সেই কীর্তি।

‘এখান থেকে জেতাটাই স্বাভাবিক ছিল’

তারপর জাতীয় দলের হয়ে খেলার সুযোগ এমনকি টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপও খেলেছেন রনি। কিন্তু, নামের প্রতি সুবিচার করতে ব্যর্থ হয়েছেন। ফলাফল দল থেকে বাদ পড়া। গত আসরের বরিশাল বুলসের হয়ে খেলে নিষ্প্রভ ছিলেন। ৭ ম্যাচে মাত্র ৪ উইকেট উইকেট নেওয়ার পাশাপাশি ওভার প্রতি খরচ করেছিলেন ৮.৬০ রান! হারিয়ে যেতে বসা এই প্রতিভাবান বোলার এবারের আসর মাত করেছেন। প্রথম ৭ ম্যাচে ৬.৬২ ইকোনমি রেটে ১৪৮ রান খরচে ১১ উইকেট তুলে নিয়েছেন তিনি। সেরা বোলিং ৩/১১। তার বোলিং দ্যুতি আর দলের বাকিদের দারুণ ফর্ম মিলিয়ে তার দলও এই মুহূর্তে শীর্ষে অবস্থান করছে। অর্থাৎ, জাতীয় দলে আবার কড়া নাড়ার কাজটা ভালভাবেই করছেন আবু হায়দার।

উদীয়মান বোলারদের মধ্যে আরও আছেন কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্সের হয়ে খেলা মেহেদী হাসান। রংপুর রাইডার্সের হয়ে নিজের প্রথম ম্যাচেই মাত্র ১৫ রান খরচায় ২ উইকেট তুলে নিয়ে চমকে দিয়েছেন। তার প্রথম শিকার কিউই কিংবদন্তী ব্র্যান্ডন ম্যাককালাম। বোল্ড হয়েছেন রংপুরের অভিজ্ঞ ব্যাটসম্যান শাহরিয়ার নাফীসও। প্রথম দুই ওভারে গেইল-ম্যাককালামকে মোকাবেলা করে রান দিয়েছেন মাত্র দুই। পরের ম্যাচে উইকেটশূন্য। তবে দুই ম্যাচে ৮ ওভার বল করে ৬.০০ ইকোনমি রেটে ২ উইকেট খুব একটা খারাপ শুরু বলা যাবে না। তবে এখনও বহু পথ বাকি প্রথম শ্রেণীর ক্রিকেটে ২২ ম্যাচে ২২ উইকেট আর তিনটি সেঞ্চুরিসহ ৩৮.৭৭ গড়ে ১২০২ রান করা খুলনার এই তরুণের।

আরও এক তরুণ প্রতিভা মোহাম্মদ সাদ্দাম। অনূর্ধ্ব ১৯ দলের হয়ে খেলে নজর কারা এই মিডিয়াম পেসার বিপিএলে প্রথম ম্যাচ খেলে ৪ ওভার বল করে ১৯ রান খরচে ১ উইকেট পেয়েছেন। তবে পরের ম্যাচে অনুজ্জ্বল। নরসিংদীর ছেলে হোসেন আলীও রাজশাহী কিংসের হয়ে ঢাকার বিপক্ষে ৪ ওভারে ৩৮ রান খরচায় ৩ উইকেট তুলে নিয়ে চমক দেখিয়েছেন। পরের ম্যাচে খুলনার বিপক্ষে ৩৮ রান খরচায় ১ উইকেট। এখন দেখার বিষয় কতদূর যেতে পারেন এই তরুণ বোলাররা।

এদিকে ব্যাটিংয়ে শীর্ষ তালিকায় সেরা দশে মাহমুদুল্লাহ, মুমিনুল, মোহাম্মদ মিঠুন ও ইমরুল কায়েস ছাড়া আর কোন দেশি খেলোয়াড় জায়গা পান নি। তবে সেরা বিশেও জায়গা না পাওয়া একজন খেলোয়াড় আছেন যাকে নিয়ে উচ্ছ্বসিত রাজশাহী কিংসের অধিনায়ক ড্যারেন স্যামি। তার নাম জাকির হাসান। মাত্র তিন ম্যাচ খেলে রান ৮৭, এর মধ্যে একটি আবার ফিফটিও আছে। অনূর্ধ্ব ১৯ দল থেকে উঠে আসা মাত্র ১৯ বছর বয়সী এই তরুণ নিজের প্রথম বিপিএল ম্যাচেই সিলেট সিক্সার্সের বিপক্ষে অপরাজিত ৫১ রান করে সবার নজরে আসেন।

নানা আলোচনা-সমালোচনায় এগিয়ে চলছে বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগ বা বিপিএলের পঞ্চম আসর। ঘরোয়া ক্রিকেটের সবচেয়ে জমজমাট আসর শুধু ক্রিকেটের জৌলুস নিয়েই হাজির হয় না, সেই সাথে জাতীয় ক্রিকেট দলের জন্য নতুন নতুন প্রতিভা উঠে আসারও প্ল্যাটফর্ম। যদিও পাঁচ বিদেশি ক্রিকেটার ইস্যুতে এবার আশঙ্কা তৈরি হয়েছে স্থানীয় ক্রিকেটার উঠে আসা নিয়ে। তথাপি, যার প্রতিভা আছে সে সুযোগ পেলেই নিজেকে প্রমাণ করার চেষ্টা করেন। এমনই কয়েকজন তরুণ উঠতি তারকা ক্রিকেটার এবারের আসরেও সগর্বে মাঠ মাতাচ্ছেন। তাদের নিয়েই আজকের আলোচনা।

Author: Wahed Murad

I am passionate for sports , specially in cricket and so i'll do my best to development of sports. I'm also teaching English language and trained at web design and development with fine web arts.